নিজস্ব জগতে বইদের যূথবদ্ধ আনন্দ উপভোগের কয়েকটি উন্মাতাল মুহূর্ত

নিজস্ব জগতে বইদের পরস্পরের সাথে আনন্দ উপভোগের কয়েকটি উন্মাতাল মুহূর্ত
বইদের কি জীবন আছে? যারা যান্ত্রিক চিন্তাকাঠামোয় আত্মসমর্পিত, তারা হয়ত বিপরীতার্থক কিছু একটা মনে করে চট করে একটা মন্তব্য প্রকাশ করবে। কিন্তু আমরা মি. মরিস লেসমোরের উড়ন্ত বইগুলো নামক এনিমেশন গল্পে বইদের অন্যরূপ দেখেছি। সেখানে বইয়েরা এক নতুন জগৎ তৈরি করেছে; বইয়েরা খেলা করে, খায়-দায়, নাচে, আকাশে-বাতাসে উড়ে বেড়ায়। পাঠকের জীবনের সাথে নিজেদের জীবনের অনুভূতিগুলো মিশিয়ে বেঁচে থাকে প্রজন্ম থেকে প্রজন্মান্তরে।

আজ আমরা আর একটি ভিডিও দেখবো। এখানে বইয়েরা কল্পজগতে বাস করে না। তারা আমাদের আশেপাশেরই কোন একটি পাঠাগারে যাপন করে প্রতিটি দিন। লোকচক্ষুর অন্তরালে তারা সক্রিয় হয়ে ওঠে। নিজেদের মত করে উদযাপন করে আনন্দময় একান্ত মুহূর্তগুলি; পরস্পরের সাথে মেতে ওঠে উন্মাতাল আনন্দে। অনবদ্য এই ভিডিওটির দর্শন প্রত্যেক গ্রন্থপ্রেমীর জন্য আবশ্যক।
  • ভিডিওটির নামঃ The Joy of Books
  • দৈর্ঘ্যঃ ১.৫১ মিনিট

  • উল্লেখ্য যে, বাঙালি জনগোষ্ঠীর চিন্তাজগতে বইদেরকে নিয়ে এমন ভাবনার বহিঃপ্রকাশ এখনও চিত্ররূপময়তা অর্জন করে নি।

1 টি মন্তব্য:

মন্তব্য করার পূর্বে মন্তব্যর নীতিমালা সম্পাদকের স্বীকারোক্তি পাঠ আবশ্যক। ইচ্ছে করলে ই-মেইল করতে পারেন।